মুসলিম চ্যান্সেলর প্রশ্নে জার্মান রাজনীতিতে তুমুল বিতর্ক

ইসলাম টাইমস : একজন মুসলিম জার্মানির চ্যান্সেলর হতে পারবেন কী না সেই প্রশ্নে তুমুল বিতর্ক চলছে দেশটির ক্ষমতাসীন দল দ্য কনজার্ভিটিভ ক্রিশ্চিয়ান ডেমোক্রেটিক ইউনিয়নে (সিডিইউ)। চ্যান্সেলর এঞ্জেলা মেরকেলের একটি মন্তব্য ঘিরে এই বিতর্ক শুরু হয়েছে।

তিনি এক সাক্ষাৎকারে বলেছেন, একজন সৎ ও যোগ্য মুসলিম ক্ষমতাসীন দলের প্রধান ও জার্মানির চ্যান্সেলর হতে পারেন। কিন্তু তার দলের অনেকেই তার এই বক্তব্যের সঙ্গে একমত হতে পারছেন না।

জার্মানির সংবাদ মাধ্যম ‘আইডিয়া’ মেরকেলকে প্রশ্ন করে, ২০৩০ সালে একজন মুসলিম কী দলীয় প্রধান ও চ্যান্সেলর হতে পারেন? তিনি বলেন, কেন নয়, যদি তারা ভালো রাজনীতিক হয় এবং তারা আমাদের মূল্যবোধ ও রাজনৈতিক দৃষ্টিভঙ্গি ধারন করেন?

গত ফেব্রুয়ারিতে ধারণ করা সাক্ষাৎকারটি গত বুধবার প্রকাশ করে ‘আইডিয়া’।

সাক্ষাৎকারটি প্রকাশিত হওয়ার জার্মানির রাজনৈতিক অঙ্গণে তুমুল বিতর্ক সৃষ্টি হয়েছে। সিডিইউ-এর অধিকাংশ নেতা মনে করেন, চ্যান্সেলরের এই বক্তব্য বাস্তবভিত্তিক নয়। তাদের যুক্তি হলো, ইসলামি মূল্যবোধ ও জার্মানির মূল্যবোধ সম্পূর্ণ ভিন্ন। সংবিধান অনুযায়ী কোনো মুসলিমকে জার্মানির চ্যান্সেলর হতে হলে জনসংখ্যায় মুসলমান সংখ্যাগরিষ্ঠ হওয়ার শর্ত রয়েছে।

উল্লেখ্য, বর্তমানে জার্মানিতে ৪ মিলিয়ন মুসলিম বসবাস করেন। তাদের অধিকাংশই তুর্কি বংশোদ্ভূত।

সূত্র : ডয়চে ভেলে

পূর্ববর্তি সংবাদটাঙ্গাইলে শিক্ষার্থীকে বেত্রাঘাত, মাদরাসা শিক্ষকের কারাদণ্ড
পরবর্তি সংবাদসুলতান মনসুর সঠিক সিদ্ধান্ত নিয়েছেন : হানিফ