হেলে পড়েছে এফ আর টাওয়ার, ৫ মাস ব্যবহার না করার পরামর্শ

ইসলাম টাইমস ডেস্ক : রাজধানী বনানীর এফ আর টাওয়ার অগ্নিকাণ্ডের পর কিছুটা হেলে পড়েছে বলে জানিয়েছে বিশেষজ্ঞ কমিটি। আগামী ১৫০ দিন পর্যন্ত (৫ মাস) ভবনটি ব্যবহার না করার পরামর্শ দিয়েছেন তারা।

এফ আর টাওয়ারের ব্যবহারের উপযোগিতা খতিয়ে দেখতে রোববার বেলা ১১টার দিকে তদন্ত কমিটি ভবনটি পরিদর্শন করে। প্রাথমিক পরিদর্শন শেষে এ মন্তব্য করেন বিশেষজ্ঞ কমিটির সদস্য ও বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক মেহেদী আহমদ আনসারী।

তিনি বলেন, ‘আমাদের টিওআর (কার্যপরিধি) হচ্ছে ভবনটি টিকিয়ে রাখা যাবে কি যাবে না। প্রধানত ৭ তলা থেকে ১০ তলা পর্যন্ত ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। এখানের কলামে ও স্ল্যাবে হালকা কিছু ক্র্যাক আছে। এটি কিছুটা হেলে পড়েছে। বিকেলে আমাদের আরেকটি টিম এসে কতখানি ক্র্যাক আছে তা নির্ধারণ করবে।’

আগুনের সূত্রপাত কীভাবে হয়েছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘এটা আমাদের তদন্তের মূল ইস্যু নয়। আমাদের যেটা মনে হচ্ছে ইলেকট্রিক শর্ট সার্কিট হতে পারে।’

গত বৃহস্পতিবার দুপুরে বনানীর কামাল আতাতুর্ক অ্যাভিনিউয়ের এফআর টাওয়ারে আগুন লাগে। এখন পর্যন্ত বনানীর আগুনের ঘটনায় নিহত হন ২৬ জন। এছাড়া বহু লোক আহত হয়ে বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

এই দুর্ঘটনায় স্বরাষ্ট্র, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ এবং গৃহায়ণ ও গণপূর্ত মন্ত্রণালয় তদন্ত কমিটি গঠন করেছে। বিশেষজ্ঞ কমিটি ছাড়াও ফায়ার সার্ভিসের পক্ষ থেকেও একটি কমিটি গঠন করা হয়।

বিশেষজ্ঞ কমিটিতে বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের তিনজন অধ্যাপক, রাজউকের প্রধান প্রকৌশলী ও সচিব (উন্নয়ন) এবং ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের প্রধান প্রকৌশলী রয়েছেন। কমিটি তিন দিনের মধ্যে প্রাথমিক প্রতিবেদন জমা দেবে।

অন্যদিকে অগ্নিকাণ্ডের কারণ অনুসন্ধানসহ ঘটনার নানা দিক জানতে প্রত্যক্ষদর্শীদের অংশগ্রহণে বনানী থানা পুলিশের অস্থায়ী কন্ট্রোল রুমে গণশুনানি শুরু হয়েছে সকাল সোয়া ১০টার দিকে। স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের তদন্ত কমিটি, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের কমিটি, ফায়ার সার্ভিস ও পুলিশ এই গণশুনানির আয়োজন করেছে।

পূর্ববর্তি সংবাদঅগ্নিনিরাপত্তার দাবিতে প্রাইম বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের আন্দোলন
পরবর্তি সংবাদকলকাতার ওয়েব সিরিজ, নগ্নতার বিরুদ্ধে মুখ খুলতে বাধ্য হলেন আদালত