সংঘাত ও সহিংসতার পথ পরিহার করে স্বাভাবিক জীবনে ফেরার আহবান সিইসির

ইসলাম টাইমস ডেস্ক : পাহাড়ি জনপদবাসীদের সংঘাতের পথ পরিহার করে, অনাকাঙ্ক্ষিত সহিংস কর্মকাণ্ড থেকে বেরিয়ে স্বাভাবিক জীবন যাপন করা ও অন্যদেরকেও নিরাপদে বসবাস করার সুযোগ দিতে আহবান জানিয়েছেন প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কেএম নুরুল হুদা।

রোববার বাঘাইছড়ি উপজেলার সম্মেলন কক্ষে দুপুর ১২টায় এক মতবিনিময় সভায় তিনি এ আহবান জানান।

রাঙ্গামাটির বাঘাইছড়ি উপজেলায় পঞ্চম উপজেলা নির্বাচনের দায়িত্ব শেষে ফেরার পথে ব্রাশফায়ারে সাতজন নিহতের ঘটনায় হতাহতদের পরিবারের মধ্যে অনুদান প্রদান উপলক্ষে এ মতবিনিময় সভার আয়োজন করা হয়।

তিনি বলেন, অস্ত্র দিয়ে, প্রাণহানির মধ্যে দিয়ে, রক্তপাত করে কোনদিন শান্তি প্রতিষ্ঠিত হতে পারে না। সংঘাত শুধু সংঘাত বাড়াতে থাকে দুটি হত্যা হলে চারটি ‘প্রতিহত্যা’র পথ সৃষ্টি হয়।

মতবিনিময় শেষে নিহত ও আহতদের স্বজনদের হাতে চেক বিতরণ করেন সিইসি। নিহতদের প্রত্যেক পরিবারকে সাড়ে পাঁচ লাখ টাকা, গুরুতর ১৯ জন আহতদের এক লাখ টাকা এবং সাধারণ আহত ১৪ জনকে পঞ্চাশ হাজার টাকা করে চেক প্রদান প্রদান করা হয়।

নিহত সাতজনের মধ্যে ৪ জন আনসার ভিডিপি সদস্য, প্রিজাইডিং পোলিং অফিসার ২ জন, প্রার্থীর এজেন্ট ছিলেন ১ জন। গুরুতর আহত হয়েছেন ১৯ জন ও সাধারণ আহত হয়েছেন ১৪ জন।

প্রসঙ্গত, গত ১৮ মার্চ সোমবার দ্বিতীয় ধাপে অনুষ্ঠিত হয় বাঘাইছড়ি উপজেলা পরিষদের নির্বাচনি দায়িত্বপালন শেষে উপজেলার বাঘাইহাট সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্র ছেড়ে গাড়িবহর নিয়ে ফেরার পথে অতর্কিত এলোপাতাড়ি গুলিবর্ষণ করে অজ্ঞাত বন্দুকধারীরা। এতে কিছু বুঝে ওঠার আগেই ঘটনাস্থলেই প্রাণ হারান ৬ জন। যাদের মধ্যে ছিলেন নির্বাচনী দায়িত্বপালন করা শিক্ষক, সরকারি কর্মকর্তা, কর্মচারী ও আনসার-ভিডিপি সদস্য।

এ ঘটনায় গুলিবিদ্ধ হয়ে পুলিশ ও আনসার-ভিডিপি সদস্য, স্কুল-কলেজের শিক্ষকসহ আহত হন ৩৩ জন।

পূর্ববর্তি সংবাদকাদিয়ানি বিষয়ক সংলাপ : কী আছে, কী নেই
পরবর্তি সংবাদচোরচালান রোধে সেন্টমার্টিনে বিজিবির নতুন চৌকি স্থাপন