মে দিবসে শ্রমিকদের প্রতি ইসলামী শ্রমিক আন্দোলনের আহ্বান

ইসলাম টাইমস ডেস্ক: মে দিবস উপলক্ষে ইসলামী শ্রমনীতি বাস্তবায়ন করে শ্রমিকের ন্যায্য অধিকার ফিরিয়ে আনতে সকল শ্রমিকের প্রতি আহবান জানিয়েছেন ইসলামী শ্রমিক আন্দোলনের কেন্দ্রীয় সভাপতি ও ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের রাজনৈতিক উপদেষ্টা মো. আশরাফ আলী আকন ।

গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে এ আহ্বান জানান তিনি।

তিনি বলেন, মে দিবস বিশ্বের সকল শ্রমিকের কাছে মহান দিবস হিসেবে বিবেচিত। মে দিবস একই সাথে বেদনার, বিজয় উৎসবের এবং সংগ্রামী শপথ নেয়ার দিন। মে দিবসের ইতিহাস মানবসৃষ্ট গোলামীর জিঞ্জির হতে মুক্ত হওয়ার ইতিহাস। মে দিবসের ইতিহাস জেল জুলুম ও মৃত্যুর ভয়কে জয় করার ইতিহাস।

এসময় তিনি বলেন, ১৯১৭ সালে শ্রমিকের অধিকার নিশ্চিত করতে যে সমাজতন্ত্রের আবির্ভাব ঘটেছিলো তার যাতাকলে পড়ে বার বার প্রতারিত হয়েছে শ্রমিক সমাজ।  একে তিনি মানবরচিত শ্রমনীতির কুফল আখ্যায়িত করে বলেন, একমাত্র ইসলামী শ্রমনীতিই পারে কৃষক-শ্রমিক, মেহনতি মানুষের ভাগ্য পরিবর্তন করে উন্নত জীবন যাপনের নিশ্চয়তা প্রদান করতে।

তিনি বলেন, আজ থেকে ১৪০০ বছন পূর্বে সর্বকালের সর্বশেষ্ঠ মহামানব হযরত মুহাম্মদ (সঃ) শ্রমজীবি মেহনতি মানুষের মুক্তির লক্ষ্যে প্রনয়ণ করেছিলেন ইসলামী শ্রমনীতি। ইসলামী শ্রমনীতির মূল কথাই হলো শ্রমজীবি মেহনতি মানুষের উপরে কোন ধরনের জুলুম নির্যাতন, ও তাদের অধিকার বঞ্চিত করা যাবে না।

এসময় তিনি আরো বলেন, এবছর করোনার প্রকোপে মে দিবসের অনুষ্ঠান যথাযতভাবে পালিত হচ্ছেনা। বিধায় শিল্প মালিক, ধনাঢ্য ব্যাক্তিবর্গের কাছে আকুল আবেদন জানাচ্ছি শ্রমিকরা যাতে দুমুঠো ভাত খেয়ে জীবন যাপন করতে পারে সেজন্য আপনাদের যাকাত সহ ১০% সম্পদ গরীব শ্রমজীবী মানুষের জীবন জীবিকার জন্য ব্যয় করুন। এবং সম্মানিত সরকারী কর্মকর্তা কর্মচারীগনকে আবেদন জানাই আপনাদের একমাসের বেতন অসহায় মানুষের সাহায্যার্থে দান করুন।

এছাড়া মে দিবস উপলক্ষে ইসলামী শ্রমিক আন্দোলন কৃষক-শ্রমিকের মুক্তির জন্য ১৭ দফা দাবি জানায় তাদের বৈঠক থেকে।

এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন ইসলামী শ্রমিক আন্দোলনের সিনিয়র সহ সভাপতি আলহাজ্ব আবদুর রহমান ও জয়েন্ট সেক্রেটারী জেনারেল জাহাঙ্গীর আলম প্রমুখ।

পূর্ববর্তি সংবাদকরোনার ভয় উপেক্ষা করে পুরোহিতের লাশ নিয়ে শ্মশানে মুসলিমরা
পরবর্তি সংবাদআজ পয়লা মে