মসজিদে প্রত্যাবর্তনের তিন মাসে আয়া সোফিয়া পরিদর্শন করেছেন ১৫ লাখ দর্শনার্থী

ইসলাম টাইমস ডেস্ক: উসমানীয় আমলে মসজিদ হিসেবে পরিচয় পাওয়া আয়া সোফিয়াকে কামালপাশা জাদুঘরে রূপান্তরের দীর্ঘ ৮৬ বছর পর তা আবারো মসজিদে প্রত্যাবর্তন করার রায় দেয় তুর্কি আদালত। এরপর থেকে এখন পর্যন্ত ১৫ লাখ দর্শনার্থী মসজিদটি পরিদর্শন করেছেন।

তুরস্কের রাষ্ট্রীয় বার্তা সংস্থা আনাদোলু এজেন্সিকে ইস্তাম্বুলের মুফতি মাহমুদ আমিন বলেন, সপ্তাহের কর্মদিবসে প্রায় ১৫ হাজার এবং সাপ্তাহিক ছুটির দিনে ২৫-৩০ হাজার দর্শনার্থী আয়া সোফিয়ায় আসে।

করোনা মহামারীর মধ্যেও প্রতিদিন হাজার হাজার তুর্কি ও বিদেশি নাগরিক আয়া সোফিয়া পরিদর্শন করেছেন বলে জানান তিনি।

অর্থোডক্স খ্রিস্টানদের ক্যাথেড্রাল হিসেবে নির্মিত আয়া সোফিয়া মসজিদে রূপান্তরিত হয় নবম শতকে সুলতান মুহাম্মদ আল ফাতিহ ইস্তান্বুল বিজয়ের পর।

কিন্তু কামাল পাশা তা জাদুঘরে রূপান্তর করে ১৯৩৪ সালে। গত জুলাইয়ে আয়া সুফিয়াকে আবারো মসজিদ ঘোষণা করে টার্কিশ আদালত।

রায়ে বলা হয়, এই ভবন মসজিদ ছাড়া অন্য কোনো কাজে ব্যবহার সম্ভাব্য বৈধ হবে না।

পরে ২৪ জুলাই জুমার নামাজ থেকে সেখানে নিয়মিত নামাজ শুরু হয়। তবে ভবনটি অমুসলিম ও বিদেশি পর্যটকদের জন্যও খোলা রাখা হয়েছে।

পূর্ববর্তি সংবাদসিনহা হত্যা মামলা ‘অবৈধ’ দাবি করে রিভিশন আবেদন প্রধান আসামির
পরবর্তি সংবাদবঙ্গোপসাগরে ফিশিং বোটের ধাক্কায় ট্রলার ডুবি, নিখোঁজ ৩১ জেলে